Templates by BIGtheme NET
Home / বর্তমান পরিপ্রেক্ষিত / মুজিবনগর হাসপাতালে রোগীর কাছে টাকা চাওয়ার অভিযোগ ওয়ার্ড বয়ের বিরুদ্ধে

মুজিবনগর হাসপাতালে রোগীর কাছে টাকা চাওয়ার অভিযোগ ওয়ার্ড বয়ের বিরুদ্ধে

মেহেরপুর নিউজ, ০৫ জুন:

মেহেরপুরের মুজিবনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রুগীর চিকিৎসা করতে টাকা চাওয়ার অভিযোগ উঠেছে ওয়ার্ড বয় সুমন আহম্মেদের নামে।মঙ্গলবার বিকালে নাজিরকোনা গ্রামের আবু বক্করের ছেলে মিজান আলী হাতের ব্যান্ডেজ করতে গেলে তার সাথে চার’শ টাকা চায় সুমন এবং টাকা না দিলে ব্যান্ডেজ করা হবে না বলেও জানানা হয়।
মিজান আলী জানান,গত ২দিন আগে মাঠে কাজ করতে যেয়ে চোট লেগে হাতের হার ফেটে যায়। পরে সে মেহেরপুর থেকে এক্সেরে করে চিকিৎসা নিয়ে আসে।দুইদিন পর নতুন করে হাতের ব্যান্ডেজ করতে সরকারী হাসপাতালের ইমার্জেন্সিতে যায় সে। সেখানে গেলে ইমার্জেন্সিতে থাকা উপসহকারী মেডিক্যাল অফিসার এখানে ব্যান্ডেজ হবে না বলে জানায়,এবং মেহেরপুরের হারের ডাক্তারের কাছে যেতে বলে। পরে ওয়ার্ড বয় তাকে বলে এক্সেরে রিপোর্ট নিয়ে আসেন এবং আমাকে চার’শ টাকা দিলে আমি ব্যান্ডেজ করে দেবো। তারা ১শত টাকা দিতে চাইলেও ওয়ার্ড বয় তার ব্যান্ডেজ করতে অপারগতা প্রকাশ করে ।পরে তারা তাকে টাকা না দিয়ে বাইরে এসে কিছু মানুষকে জানালে তারা ওয়ার্ড বয়ের কাছে জায়। সেখানে গিয়ে টাকার কথা জানতে চাইলে সে বলে টাকা না দিলে ব্যান্ডেজ হবে না। পরে লোকজন সাংবাদিক ডাকার কথা বললে সে বলে আপনার সাংবাদিক ডাকে। সাংবাদিক আমার কিছুই করতে পারবে না। এই বলে তিনি পালিয়ে যান।

উপসহকারী মেডিক্যাল অফিসার হিমাংশ পোদ্দার জানান,মিজান হাসপাতালে হাতের ব্যান্ডেজ করার এসেছিলো। আমাদের এখানে হারের ডাক্তার না থাকায় আমি তাকে মেহেরপুরে হারের ডাক্তারের কাছে যেতে বলি। এর পরে কি হয়েছে আমি জানিনা।

এ বিষয়ে ইমার্জেন্সিতে দায়িত্বে থাকা আরএমও ডাক্তার মোরশেদ জানান,আমি একটু বাইরে গিয়েছিলাম,তাই আমি এ বিষয়ে কিছু জানিনা। তবে সে যে কাজটা করেছে সেটা ভুল করেছে।

মুজিবনগর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আনোয়ারুর ইসলাম বলেন, অভিযোগ পেলে সুমন আহমেদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Facebook Comments
Social Media Sharing
by webs bd .net
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.