Templates by BIGtheme NET
Home / বর্তমান পরিপ্রেক্ষিত / মেহেরপুরের পয়নিষ্কাশন ড্রেন এখন মরন ফাঁদ

মেহেরপুরের পয়নিষ্কাশন ড্রেন এখন মরন ফাঁদ

নিউজ ডেস্ক
মেহেরপুর শহরের যাদবপুর ঘাট সংলগ্ন ১নং ওয়ার্ডের শহীদ গফুর সড়ক সড়ক ও ফুটপাতের বেহাল দশা। ড্রেনের ওপরের আবরন ভেঙ্গে মানুষ চলার পথটি তৈরী হয়েছে মরন ফাঁদে। বিশেষ করে স্কুলগামী ছোট্র শিশুদের চলাচলের চরম ঝুকি বহন করছে। যদি তড়িৎ ব্যবস্থা গ্রহণ করা না হয় তাহলে যে কোন সময় শিশু মৃত্যুর মতন অনাকাক্ষিত ঘটনা ঘটতে পারে বলে এলাকাবাসীর ধারণা। পাশাপাশি সড়ক পাশ দিয়ে চলে যাওয়া ড্রেনটি হচ্ছে শহরের সকল ড্রেনের পানি ও সুয়েজার মল ভৈরব নদে যাওয়ার একমাএ পথ। যাওয়া কারণে ড্রেনের গভীরতা অন্যান্য ড্রেনের চেয়ে অনেক বেশি। ড্রেনের ওপর কোন ঢাকনা না থাকায় একদিকে যেমন জীবনের ঝুকি বাড়ছে অপরদিকে খোলা ড্রেন হওয়ায় প্রচন্ড দুর্গন্ধে এলাকাবাসী অতিষ্ট হওয়ার পাশাপাশি পরিবেশের মারাত্নক বিপর্যয় ঘটছে। জানা যায়,এই সড়কটি শহরের অন্যান্য সড়ক চেয়ে অনেক ব্যাসত্তম সড়ক । কারণ এটি বাংলাদেশ-ভারতের সীমাত্ম ক্যাম্প বুড়িপোতার সংযোগ সড়ক,মেহেরপুর দারীয়াপুর বাইপাস সড়ক। এছাড়াও এ সড়ক দিয়ে প্রতিদিন যাতায়াত করে অসংখ্য বাস ট্রাক,স্কুলগামী শতশত ছেলে-মেয়ে,অফিসগামী লোকজন এমনকি মেহেরপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য জয়নাল আবেদিন নিজেই। কারণ এ সড়কটির পাশে অবস্থিত বর্তমান এমপির নিজস্ব কার্যালয়,ছোট বড় বেশ কয়েকটি ইট ভাটা,স্কুল-মাদ্রাসা সহ ব্যক্তি মালিকাধীন একাধিক প্রতিষ্ঠান। কিন্তু ভাঙ্গা সড়ক আর খোলা ড্রেনের কারণে প্রতিনিয়ত ঘটছে ছোটোখাটো দূর্ঘটনা।
এলাকাবাসী সহ ভুক্তভোগী শিশুদের অভিভাবকরা মেহেরপুরের পৌর মেয়রের বিরুদ্ধে অভিযোগ করে বলেন,দীর্ঘদিন ধনে সড়কটি বেহাল অবস্থা জানা সত্বেও পৌর মেয়র সড়ক সহ ড্রেনটি মেরামতের কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করছেনা। তারা সাফ কথা জানিয়ে দিয়েছে পৌর মেয়র যদি সড়কটি মেরামতের উদ্যেগ গ্রহণ না করে তাহলে তারা অন্দোলনে যাবে।
মেহেরপুর পৌর কতৃপক্ষ বলছে,বিষয়টি আমাদের নজরে আছে। অল্প দিনের মধ্যেই সংস্কারের উদ্যেগ গ্রহণ করা হবে।

Facebook Comments
Social Media Sharing
by webs bd .net
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.