Templates by BIGtheme NET
Home / কৃষি সমাচার / মেহেরপুরে আম বাজারজাতের সময় নির্ধারণ :: হিমসাগর ২০ মে, ল্যাংড়া ৩০ মে

মেহেরপুরে আম বাজারজাতের সময় নির্ধারণ :: হিমসাগর ২০ মে, ল্যাংড়া ৩০ মে

মেহেরপুর নিউজ, ০৪ মে:
গত বছর মেহেরপুর থেকে ইউরোপ মহাদেশে হিমসাগর আম রপ্তানি করা হয়েছিল ১২ মেট্রিক ট্রন। আর এ বছর জেলা থেকে ওই জাতের আম রপ্তানি করা হবে ২০০ মেট্রিক টন। মেহেরপুরের হিমসাগর আম দেশের সবচেয়ে বেশি সুস্বাদু হওয়ায় ইউরোপিও মহাদেশে ক্রমেই এর চাহিদা বেড়ে চলেছে। এছাড়াও জেলার বিভিন্ন অঞ্চলেও মেহেরপুরের হিমসাগর আমের ব্যাপক চাহিদা বেড়েছে। ফলে হিমসাগর আমের মাধ্যমে মেহেরপুর আমের জন্য প্রসিদ্ধ এলাকা হিসেবে চিহিৃত হচ্ছে। এটিকে ধরে রাখতে হলে সঠিক সময় আম বাজারজাত করতে হবে।
আজ বৃহস্পতিবার সকালে মেহেরপুর জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসন ও কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের আয়োজনে নিরাপদ আম বাজারজাত করণ শীর্ষক এক মতবিনিময় সভায় বক্তারা এ মতামত প্রকাশ করেন । মতবিনিয়ম সভা শেষে জাত ভেদে মেহেরপুরের ভৌগলিক আবহাওয়ার উপর নির্ভর করে আম বাজারজাত করার সময় নির্ধারণ করে দেওয়া হয়।
জেলা প্রশাসক পরিমল সিংহ’র সভাপতিত্বে মতবিনিয়ম সভায় আম সংরক্ষন, পরিবহন, গুনগত মান নির্ধারন নিয়ে আলোচনা করেন চাপাইনবাবগঞ্জের আঞ্চলিক উদ্যানতত্ব গবেষনা কেন্দ্রের উর্ধতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. শরাফ উদ্দিন। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন পুলিশ সুপার আনিছুর রহমান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম রসুল, জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক এস এম মোস্তাফিজুর রহমান, বারাদি হর্টিকালচার সেন্টারের উপপরিচালক জাহিদুল আমিন, সদর উপজেলা কৃষি প্রশিক্ষণ কর্মকর্তা স্বপন কুমার সাহা, আম ব্যবসায়ী আলাউদ্দিন খান, আমচাষী আব্দুল কুদ্দুস, হারুণ অর রশিদ প্রমুখ।
আম ব্যবসায়ী, চাষী, কৃষি কর্মকর্তা ও বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তার বক্তব্যর নির্দেশনার উপর জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে আম বাজারজাতের সময় নির্ধারণ করে দেন জেলা প্রশাসক পরিমল সিংহ।
জেলা প্রশাসক বলেন, গোপালভোগ আম ১৫ মে, হিমসাগর আম ২০ মে, ল্যাংড়া আম ৩০ মে, ফজলি ১৫ মে, আ¤্রপালি জুনের শেষ সপ্তাহ, মল্লিকা ও বিশ্বনাথ জাতের আম জুলাইয়ের ১ম সপ্তাহ থেকে বাজারজাত করণের সময় নির্ধারণ করা হলো। তিনি বলেন, এর দু’একদিন আগে যদি কোন বাগানে আম পেকে যায় তবে সংশ্লিষ্ট কৃষি কর্মকর্তাকে আমব্যবসায়ীরা জানাবেন। কৃষি কর্মকর্তারা ওই বাগান পরিদর্শন করে যদি দেখেন আম পরিপক্ক হয়েছে তাহলে তাদেও মতামতের ভিত্তিতে আপনারা ওই বাগানের আম বাজারজাত করতে পারবেন।
মতবিনিময় সভায় কৃষি কর্মকর্তা, আম ব্যবসায়ী, আমচাষীরা অংশগ্রহণ করেন। একই সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সেরের মাধ্যমে গাংনী ও মুজিবনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে ওই এলাকার আমব্যবসায়ী ও চাষীরাও অংশগ্রহণ করেন।

Facebook Comments
Social Media Sharing
by webs bd .net
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful