Templates by BIGtheme NET
Home / সাহিত্য ও সাময়িকী / করি গানের ধর্ম পালন :: কবিয়াল রমজান আলী

করি গানের ধর্ম পালন :: কবিয়াল রমজান আলী

12540695_1684722385104600_7619947521700482402_nআবদুল্লাহ আল আমিন:
‘আমি নাগরিক কবিয়াল/ করি গানের ধর্ম পালন/ সকলেই ভাবছে লিখছে সুমন/ আসলে লিখছে লালন।’ কলকাতা মহানগরে বসবাসকারী কবীর সুমনের গান নাগরিক মধ্যবিত্তের গান, তাই সর্বঅর্থেই তিনি নাগরিক কবিয়াল। কবিয়াল রমজান আলী নাগরিক কবিয়াল নন; তিনি গ্রাম ও মফস্বল শহরের কবিয়াল। পঁচাশি বছরের দীর্ঘ জীবন পরিক্রমায় কবিয়াল রমজান আলী বিশ্বাস সাড়ে সাত দশক ধরে গ্রামে-মফস্বল শহরে কবিগানের আসর মাতিয়ে চলেছেন। পরমনিষ্ঠা ভক্তি সহযোগে লালন সাঁই ও কাবিয়াল কুবিরের মতোই গানের ধর্ম পালন করে চলেছেন। প্রতিভাবান এই কবিদারের জন্ম ১৯৩০ সালে মেহেরপুর জেলার ভৈরব তীরবর্তী গ্রাম হিতিমপাড়ার এক কবিয়াল পরিবারে। তাঁর পিতামহ ইছারুদ্দীন বিশ্বাস এবং পিতা দায়েম বিশ্বাস ছিলেন খ্যাতিমান কবিয়াল ও বয়াতি। মেহেরপুরের কবিয়াল ও বয়াতিদের মধ্যে দায়েম বিশ্বাস ছিলেন সবচেয়ে জনপ্রিয়। পিতামহ ও পিতার প্রেরণা ও শিক্ষায় রমজান আলী হয়ে ওঠেন কবিগান, পালাগান, ভাবগান ও ধুয়াগানের অপ্রতিদ্বন্দ্বী গায়কে। তিনি একাধারে শক্তিমান কবিয়াল, পালাকার, গায়ক এবং বিচার-ভাবগানের বিশ্লেষক ও পদকর্তা। পিতার যোগ্য উত্তরসূরী হিসেবে রমজান বিশ্বাস ধুয়া ও কবিগানে ভিন্ন মাত্রা সংযোজন করেন। পূর্বে কবিগান ছিল হিন্দু পুরাণ ভিত্তিক, তিনি কবিগানে মুসলিম ঐতিহ্য ও ইতিহাস যুক্ত করে ভিন্ন ব্যঞ্জনা প্রদান করেন। আসরে গান রচনার ক্ষেত্রে তিনি অপ্রতিদ্বন্দ্বী। শ্রোতাদের মনোরঞ্জনের জন্য তাৎক্ষণিক পদ রচনার অসাধারণ কবিত্বশক্তি তার মধ্যে রয়েছে। তাঁর অনুজ কমরুদ্দীন বিশ্বাসও আসর মাতানো কবিয়াল হিসেবে মেহেরপুর জেলায় খ্যাতি অর্জন করেছেন। যশোর, ঝিনাইদহ, চুয়াডাঙ্গা, মেহেরপুরের বিভিন্ন আসরে গান করেছেন। এক আসরে কবিয়াল বিজয় সরকারের আশীর্বাদ পেয়ে ধন্য হয়েছেন। পশ্চিমবঙ্গের নদীয়া ও মুর্শিদাবাদ জেলার বিভিন্ন আসরে গান করেছেন। শৈশবে বাবার সাথে নদীয়ার জামসেদপুরের অন্নপূর্ণার মেলায় কবিগানের আসরে দোহার হিসেবে গান গাওয়া তার জীবনের অনন্য স্মৃতি। তিনি বলেন, ‘হিন্দু মুসলমানের শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান যখন ছিল, তখন কবিগানের আসর ভাল জমতো। আসরে হিন্দু-মুসলমান নির্বিশেষে সবাই হাজির হতো। হাজার হাজার মানুষের উপস্থিতিতে আসরের চারপাশ মুখরিত হয়ে উঠতো। দেশ ভাগের পর হিন্দুরা ওপারে চলে যাওয়ায় মেহেরপুর অঞ্চলে কবিগানের আসর আর তেমন হয় না।’
রমজান আলী কেবল একজন কবিয়াল নন, তিনি উঁঁচুমানের পদকর্তা এবং প্রত্যুৎপন্ন বাকশিল্পী। কবিগানের আসরে শেষ পর্যায়ে প্রশ্নমূলক ধুয়া পরিবেশিত হয়। ধুয়ার সওয়াল জবাবে কবিয়ালের শাস্ত্রজ্ঞান, শিল্পরসবোধের পরিচয় পাওয়া যায়। রমজান আলী প্রশ্নমূলক ধুয়াগানে প্রত্যুৎপন্নমতিত্বের পরিচয় দিয়েছেন। একটি প্রশ্নমূলক ধুয়ায় বলছেন:
‘কয় আকারে কী প্রকারে ছিল পরোয়ার।/তার পরে কী আকার ধরে/ জাহের হলেন ভবের পার।।/প্রথমে কী রূপে সাঁই, কী দিয়ে কাহারে বানাই।/সেই কথাটি শুনিতে চাই, খুলে বলো আজ আমার।।/তারপরে তে কী গঠিল, শুনিতে বাসনা হলো।/কিসের আয়না রেখেছিল, সামনে তাহার।।/সেই আয়নার কয়টি আকার ছিল/ সেই আয়নায় কে মুখ দেখিল।/রমজান বলে, এসব কথার মানে এবার বলো।।’
কিংবা আসর মাতানোর জন্য যখন তিনি প্রতিপক্ষকে বলেন,
‘আদ্য শক্তি সৃষ্টির গোড়া/ছিল নাম তার মা জহুরা।/ ইমাম হোসেন নয়ন তারা/ কোন অঙ্গে কাহার মিলন।/শক্তি মাতার বক্ষ পরে/ ভেসে ছিল নরে কারে।/ মা বলে সাঁই ডাকলো তারে/কারে বলবো খোদা নিরঞ্জন।’
তখন প্রতিপক্ষ এর জবাব খুঁজতে গিয়ে মহাফাঁপরে পড়ে যায়। এভাবে রমজান পরিণত হন কবিগান ধুয়াগানের অপ্রতিদ্বন্দ্বী নায়কে। তিনি মেহেরপুরের কবিগানকে একটি বিশেষ মর্যাদায় প্রতিষ্ঠিত করেন। একসময় তাঁর গানের আসরে হাজার হাজার শ্রোতা জাময়েত হতো। তিনি জানালেন, ‘দুর্গাপূজা উপলক্ষে যশোরের এক আসরে তিন দিন ধরে গান করেছি।’ তাঁর আসরে শ্রোতার সংখ্যা উপচে পড়তো। রমজান আলীর প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা ক্লাস ফোর পর্যন্ত। কিন্তু কোরআনের বঙ্গানুবাদ, রামায়ণ, মহাভারত পড়েছেন কয়েকবার। বৈষ্ণব পদাবলী ও সাহিত্য, ফিকাহ শাস্ত্র, সুফিবাদ সম্পর্কেও তার অগাধ জ্ঞান রয়েছে। এসব জ্ঞান আর অভিজ্ঞতা দিয়ে তিনি কবিগানকে একটি বিশেষ উচ্চতায় নিয়ে গেছেন। জীবনের সায়াহ্নে দাঁড়িয়েও মেহেরপুরের কবিগানের শেষ প্রতিনিধি রমজান আলীর কবিগানের প্রতি অনুরাগ একটুও কমেনি; তিনি মনেপ্রাণে চান, ‘লোকসংস্কৃতির এই বলবান ধারাটি টিকে থাকুক প্রবলভাবে, যেমনটি ছিল এন্টনি ফিরিঙ্গি, ভোলা ময়রা, রাসু নৃসিংহ, গোবিন্দ অধিকারীদের কালে।’
লেখক: সহযোগী অধ্যাপক, মেহেরপুর সরকারী কলেজ

Facebook Comments
Social Media Sharing
by webs bd .net
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful